শুক্রবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২১, ১০:৪৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :

কার্পাসডাঙ্গা বাজারের অবৈধ পজিশন উচ্ছেদে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নেতৃত্বে অভিযান:৪ দিনের ভিতর বাকি স্থাপনা সরিয়ে নিতে নির্দেশ

Reporter Name / ৫৮ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২১, ১০:৪৮ অপরাহ্ন


ষ্টাফ রিপোর্টার:চুয়াডাঙ্গা জেলার দামুড়হুদা উপজেলার কার্পাসডাঙ্গা বাজারের মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনের পাশে অবৈধ দখলদারদের পজিশন দখল বিষয়টি জানাজানি হলে নড়েচড়ে বসে দামুড়হুদা উপজেলা প্রশাসন।দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার দিলারা রহমান ও সহকারী কমিশনার ভূমি সুদীপ্ত সিংহ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন ও দখলকৃত পজিশন ছেড়ে দিতে ও অবৈধ স্থাপনা সরিয়ে নিতে সময় বেঁধে দেন।নির্ধারিত সময় পার হলেও দখলদাররা তাদের স্থাপনা সরিয়ে না নিলে গতকাল বুধবার সকালে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার দিলারা রহমানের নেতৃত্বে অবৈধ দখল উচ্ছেদ অভিযান পরিচালিত হয়।১ ঘন্টার অভিযানে ৩১ টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়।

এসময় এসব স্থাপনার পাশে আরো দখলকৃত ১৫ টি অবৈধ স্থাপনা আগামী ৪ দিনের ভিতর সরিয়ে নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়।দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের এ অভিযানকে সাধুবাদ জানিয়েছেন এলাকাবাসী সহ সচেতন মহল।এলাকাবাসী সহ সচেতন মহলের দাবী কার্পাসডাঙ্গা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনের পিছনে প্রায় ১৫ টি অবৈধ স্থাপনা ৪ দিনের ভিতরে উচ্ছেদ করে এ এলাকাটাকে পুরোপুরি দখল মুক্ত রাখার।আর এদের উচ্ছেদ না করলে আবারো দখলদাররা বেপরোয়া হয়ে উঠবে।সেই সাথে এসকল অবৈধ স্থাপনা দখলকারীরা মনে করবে ওগুলো উচ্ছেদ হলো আমাদের টা হলো না তার মানে এগুলো বৈধ।তাই ৪ দিনের সময়ের ভিতর এসকল স্থাপনা সরিয়ে দিয়ে এলাকাটাকে দখল মুক্ত রাখতে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার দিলারা রহমানের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছে এলাকাবাসী সহ সচেতন মহল।সেই সাথে মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনের কোলঘেঁষে অবৈধ দোকান গুলো সহ কার্পাসডাঙ্গা বাজারের ব্রীজমোড়ের অভিমুখে,সাইকেল বাজার,কার্পাসডাঙ্গা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সামনে,মাছের আড়তের দিকে যেতে, কার্পাসডাঙ্গা বাজার দোকান মালিক সমিতির পিছনে সহ সবজির চান্নি এলাকায় অবৈধ সব দখলকৃত স্থাপনা উচ্ছেদের দাবী জানিয়েছেন সচেতন মহল সহ এলাকাবাসী ।

এলাকা ঘুরে জানা গেছে কার্পাসডাঙ্গা বাজারজুড়ে কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়নের হেভিওয়েট নেতা নামধারী বেশ কয়েকজন ব্যাক্তির রয়েছে ৩ টা ৪ টা থেকে ৫ পর্যন্ত অবৈধ পজিশন।অনেকে পজিশন দখল করে তা মোটা অঙ্কের টাকায় বিক্রিও করেছেন কেউবা দিয়েছেন ভাড়ায়।কার্পাসডাঙ্গা বাজারের অবৈধ স্থাপনা নিয়ে সরব হওয়া অনেক ব্যাক্তির ১ টা কারো ২ টা কারো বা ৫ টা পর্যন্ত অবৈধ পজিশন রয়েছে বলে জানা গেছে।কার্পাসডাঙ্গা বাজারজুড়ে এ উচ্ছেদ অভিযান পরিচালিত হোক এমনটাই দাবী জানিয়ে সচেতন মহল সহ এলাকাবাসী চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকারের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনায় সহযোগীতা করেন কার্পাসডাঙ্গা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এস আই আতিকুর রহমান জুয়েল সহ সঙ্গীয় পুলিশ ফোর্স।এ সময় উপস্থিত ছিলেন দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নাজির, আইসিটি টেকনিশিয়ান দীনার সহ জেলার ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ

এক ক্লিকে বিভাগের খবর