শুক্রবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২১, ১১:২১ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে সদ্য ভূমিষ্ঠ পনের টি কন্যা শিশুর পরিবারকে পাঠানো হলো ফুল ও নতুন পোশাক হাতিকাটা গ্রামে আবাসনের পাশে ভূমিহীনদের জন্য ঘর নির্মাণের কাজ সরজমিনে পরিদর্শন করেছেন জেলা প্রশাসক ও এমপি ছেলুন জোয়ার্দার আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে বিষ্ণুপুর উদয়ন সংঘ কর্তৃক আয়োজিত ভাষা দিবস ক্রিকেট টুর্নামেন্টের শুভ উদ্বোধন ভোটের অধিকার এবং গণতন্ত্র ধ্বংসের জন্য নির্বাচন কমিশনার দায়ী নাটোরে বিএনপি নেতা দুলু চুয়াডাঙ্গা আন্তঃজেলা ট্রাক ও ট্যাংকলরী শ্রমিক ইউনিয়ন এর নব-নির্বাচিত কমিটির শপথ গ্রহন অভিষেক অনুষ্ঠানে এমপি ছেলুন জোয়ার্দার মহেশপুরে ৫ কেজি গাঁজা সহ মাদক ব্যবসায়ী আটক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি আরও বাড়ল চুয়াডাঙ্গায় সুইসাইট নোটে মাকে ‘সরি’ লিখে মেডিকেল অ্যাসিসট্যান্টের আত্মহত্যা বাদীর ভুলে পুলিশের চাকরি হারিয়ে দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন সোয়েব! খুলনায় ট্রাক-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে নিহত ২

মাত্র এক টাকা দেনমোহরে বিয়ে!

Reporter Name / ৫১ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২১, ১১:২১ অপরাহ্ন

ফরিদপুর প্রতিবেদকঃ ফরিদপুরে শুক্রবার দুপুরে শহরের ঝিলটুলী মহল্লার মেজবান পার্টি সেন্টারে কনের ইচ্ছায় এক টাকা দেনমোহরে একটি বিয়ের কাবিন সম্পন্ন হয়েছে। কনে মাদারীপুরের সাহেবের চর মহল্লার বাসিন্দা আজিজুল হক ও নাসরিন সুলতানার একমাত্র মেয়ে বিপাশা আজিজ। বিপাশা ঢাকায় একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মকর্তা পদে কর্মরত। বর আশীকুজ্জামান চৌধুরী  ব্যবসা করেন। ফরিদপুর শহরের কুঠিবাড়ি কমলাপুর মহল্লার বাসিন্দা আসাদুজ্জামান চৌধুরী ও তাহমিনা চৌধুরীর ছেলে তিনি। জানা যায়, মেয়ে আর্থিকভাবে সচ্ছল হওয়ায় তার বিয়েতে এক টাকা দেনমোহর ধরার সিদ্ধান্ত নেন। কিন্তু বিয়ের অনুষ্ঠানের কাজি দেনমোহরের জায়গায় দুই লাখ টাকা লেখেন। এ ঘটনা জানার পর মেয়ের মা তার মেয়ের সিদ্ধান্ত জানিয়ে এক টাকা দেনমোহর লেখান।বিয়েতে অংশ নেয়া ফরিদপুর নাগরিক মঞ্চের সভাপতি আওলাদ হোসেন বলেন, দেখা যায় কনে পক্ষ দর-কষাকষি করে কাবিনের দেনমোহর বাড়িয়ে থাকেন। কিন্তু এ বিয়েতে সে চিত্র একেবারে ভিন্ন। পাশাপাশি আর্থিকভাবে সচ্ছল এক নারীর আত্মমর্যাদা রক্ষার দৃষ্টান্তও বটে।

বাংলাদেশ লিগ্যাল এইড অ্যান্ড সার্ভিসেস ট্রাস্ট (ব্লাস্ট) ফরিদপুরের সমন্বয়কারী শিপ্রা গোস্বামী বলেন, মুসলিম বিয়ে একটি চুক্তি। মোহরানা নারীর হক। স্বামীর আর্থিক সংগতি ও নারীর সামাজিক অবস্থানের ভিত্তিতে দেনমোহর নির্ধারিত হয়ে থাকে। তিনি বলেন, মোহরানার ব্যাপারে আবেগের কোনো স্থান নেই। আবেগের বশে মোহরানায় এক টাকা লেখা যেতে পারে। কিন্তু এটি মোটেও বাস্তবসম্মত নয়। কেননা, নারী বর্তমানে সচ্ছল হতে পারেন, কিন্তু ভবিষ্যতে তিনি সচ্ছল না–ও থাকতে পারেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ

এক ক্লিকে বিভাগের খবর