বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১, ০৯:০৫ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
জেলা গোয়েন্দা শাখা সিরাজগঞ্জ কর্তৃক অভিযানে ১শত পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট ও ১ কেজি গাঁজা সহ ৩ জন গ্রেফতার দামুড়হুদা মডেল থানার ওসি আব্দুল খালেক এর সফলতার ১ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে ফুলেল শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন চুয়াডাঙ্গা সদর থানা পুলিশের অভিযানে ২ কেজি গাঁজা ও দু্ইটি মোটরসাইকেল উদ্ধার : আটক ৩ বেনাপোল পোর্ট থানাধীন এলাকায় পুলিশের অভিযানে ইয়াবা ট্যাবলেট সহ আটক ১ চুয়াডাঙ্গার পুলিশ সুপারের মধ্যস্থতায় আছমিনা খাতুন ফিরে পেল তার সুখের সংসার জীবননগরে ভ্রাম্যমাণ অভিযানে ৫ টি ইটভাটা মালিককে ১ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা জরিমানা সিরাজগঞ্জ জেলা পুলিশের আয়োজনে হেপাটাইটিস “বি” ভ্যাক্সিন (বুস্টার ডোজ) ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত জীবননগরে শিকড় সমাজ কল্যাণ সংস্থার বাস্তাবায়নে ১শত পরিবারের মাঝে বিনামুল্যে টিউবওয়েল বিতরণ মিডিয়ায় গুজব, অপপ্রচার, নারীর প্রতি ডিজিটাল ভায়োলেন্স ও কিশোর গ্যাং বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশ চুয়াডাঙ্গার দর্শনা চেকপোস্টের জিরো পয়েন্ট থেকে কারাভোগ শেষে ভারতীয় নাগরিককে হস্তান্তর

চুয়াডাঙ্গা জেলার দামুড়হুদা চিৎলার চিন্হিত ভূমীদস্যু সাদ্দামের অত্যাচারে অতিষ্ঠ এলাকাবাসি।

Reporter Name / ১৮১ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১, ০৯:০৫ অপরাহ্ন

আশরাফুজ্জামান রনি, কার্পাসডাঙ্গা অফিসঃ চুয়াডাঙ্গা জেলার দামুড়হুদার চিৎলার খোকনের ছেলে চিন্হিত ভূমী দস্যু সাদ্দাম এর কারনে ধংস গতে চলেছে শত শত বিঘা ফসলের জমি কেটে প্রশাসন কে বৃদ্ধা আঙ্গুল দেখিয়ে অবাধে বালু কেটে চলেছে, নষ্ট হচ্ছে শত শত বিঘা ফসলের জমি চাষ করা থেকে বন্চিত হচ্ছে চাষিরা। এলাকাবাসি অভিযোগ করে বলে এই মাটি খেকো সাদ্দামের অত্যাচারে আমরা অতিষ্ঠ। এই বিষয়ে সাদ্দামের সাথে যোগাযোগ করা হলে সাদ্দাম বলে আমি নিয়মিত প্রশাসনকে ম্যানেজার করে বালি কাটছি পারলে কিছু করে নিস। অনুমদোনের কাগজ পত্র আছে কিনা জানতে চাইলে সে কনো কাগজ পত্র দেখাতে পারেনি। এই বিষয়ে দামুড়হুদা উপজেলা সহকারী কর্মকর্তা ভূমি স্যারকে মোবাইল ফনের মাদ্ধ্যেমে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন আমরা পর্যায় ক্রমে সাদ্দামের বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহবশত করবো।কিন্তু এক সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও তার বিরুদ্ধে তেমন কনো প্রদক্ষেপ গ্রহন চোখে পড়েনি বলে এলাকাবাসি অভিযোগ করে বলে। আর এদিকে এই ভূমীদস্যু সাদ্দাম লক্ষ লক্ষ টাকার বালি বিক্রয় করে অল্পো দিনেশ কোটিপতি বনো গেছে আর টাকার গরমা বেপরোয়া হয়ে উঠেছে এই মাটি খেকো সাদ্দাম। দিনেশ দুপুরের বিরদর্পে বালু কেটে চলেছে, এলাকাবাসি জানতে চাই যে এই সাদ্দাম বালু কাটার সময় আমরা প্রশাসনকে জানালেও তার কনো প্রতিকার পাচ্ছি না কারনকি? তাহলে কে এই চিন্হিত ভূমীদস্যু সাদ্দাম এর খুটির জোর কোথাই? তাই চিৎলা গ্রামের ফসলের জমি গুলো এই মাটি খেকো সাদ্দামের হাত থেকে বাচাইতে এলাকার চাষীদের জমি গুলো রক্ষা করতে এই ভূমীদস্যু, মাটি খেকো সাদ্দাম কে অতিদ্রুত আইনের আওতায় নিয়ে তার জোর শাস্তীর দাবী জানিয়ে চুয়াডাঙ্গা জেলার সুযোগ্য জেলা প্রশাসক মহোদয়ের আশু হস্তোক্ষেপ কামনা করেছে এলাকার নিরিহো চাষিরা সহ এলাকার সূধীমহল।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ

এক ক্লিকে বিভাগের খবর