রবিবার, ০৭ মার্চ ২০২১, ১২:১০ অপরাহ্ন

বগুড়ার নন্দীগ্রামে সন্তানকে হত্যা করে মা’র আত্মহত্যা

Reporter Name / ১০৬ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : রবিবার, ০৭ মার্চ ২০২১, ১২:১০ অপরাহ্ন

আব্দুল ওয়াদুদ, শেরপুর (বগুড়া) থেকে,জাগো দেশ নিউজ: বগুড়ার নন্দীগ্রামে
দুই বছরের শিশু সন্তানকে হত্যা করে মা বন্যা রানী লিপি বিষপানে আত্মহত্যা করেছে। বুধবার (১৫ এপ্রিল) ভোররাতে নন্দীগ্রাম উপজেলার বুড়ইল ইউনিয়নের পোঁতা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত লিপি রানী পোঁতা গ্রামের বিপুল বর্মনের স্ত্রী।
জানা গেছে, বিপুল বর্মন দুপচাঁচিয়া উপজেলায় একটি চাউল কলে শ্রমিকের কাজ করেন। তিনি সেখানেই অবস্থান করেন। মাঝে মধ্যে স্ত্রী সন্তানের খবর নিতে বাড়িতে আসেন। কিন্তু সস্প্রতি সময়ে করোনা ভাইরাসে প্রাদুর্ভাবের কারনে যানবাহন না থাকায় বিপুল বর্মন নিয়মিত বাড়িতে আসতে পারেন না। বাড়িতে
বিপুলের বাবা-মা এবং স্ত্রী সন্তান বসবাস করেন। বুধবার (১৫ এপ্রিল) ভোর রাত ৪টার দিকে বিপুলের একমাত্র পুত্র সন্তান বাপ্পী কে (২) তার মা হত্যা করে। এরপর নিজেও বিষপান করে অসুস্থ হয়ে পড়ে। ঘরে গোঙ্গানীর শব্দ পেয়ে পাশের ঘরে ঘুমিয়ে থাকা শ্বশুর- শ্বাশুড়ী জেগে উঠে দেখতে পায় নাতী বাপ্পীর মৃতদেহ বিছানায় পড়ে আছে এবং পুত্রবধু বিষপান করে অসুস্থ হয়ে পড়েছে। প্রতিবেশীদের সহযোগীতায় লিপিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কিছুক্ষন পর লিপি মারা যায়। নিহত লিপির ভাই আনন্দ বর্মন বলেন ৫ বছর আগে তার বোনের বিয়ে হয়েছে। বিয়ের পর থেকেই শ্বাশুড়ী অপছন্দ করতো। কারনে অকারনে তার বোনকে মানসিক নির্যাতন
করতো। আর একারনেই সন্তানকে হত্যা করে তার বোন আত্মহত্যা করতে পারে।
নন্দীগ্রাম থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ শওকত কবীর বলেন, ঘটনাটি নিয়ে প্রতিবেশীরাও তেমন কিছু বলতে পারছেন না। মা-ছেলের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ

এক ক্লিকে বিভাগের খবর